আড়াইহাজারে দলীয় কোন পরিচয় নেই গুলিবিদ্ধ নির্যাতিত ছাত্রদল নেতা সাইফুল ইসলাম

Uncategorized অর্থনীতি আন্তর্জাতিক প্রচ্ছদ রাজনীতি

মামুন আহমেদ জয় :- নারায়ণগঞ্জের আড়াইহাজার উপজেলা ও কালাপাহাড়িয়া ইউনিয়ন এর ছাত্রদলের রাজনীতিতে দীর্ঘদিন ধরে নির্যাতিত এক পরিবার।

সিদ্দিকুর রহমান তার বাবার নাম কালাপাহাড়িয়া ইউনিয়ন বাসী এক নামে চিনেন।
বিএনপি’র ত্যাগী ও সৎ সাহসী একজন কর্মী।

সিদ্দিকুর রহমান কখনো পদের জন্য কাজ করেনি মাঠে সর্বত্রই দলের জন্য ত্যাগ স্বীকার করেছেন। খেয়েছেন মামলা হামলা।

তার বিরুদ্ধে আওয়ামী লীগের সাজানে মিথ্যে ভুয়া প্রায় ২৫টি মামলা রয়েছে।
সিদ্দীকুর রহমান একমাত্র ব্যক্তি যিনি নিজস্ব অর্থায়নে নজরুল ইসলাম আজাদের পক্ষে করোনা মহামারীতে দুইশত,র বেশি পরিবারকে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করেন।

সিদ্দিকুর রহমানের বড় ছেলে
মো: আরিফুল ইসলাম সাইফুল ছাত্রদলের রাজনীতি করেন।
আওয়ামী লীগের জুলুমের শিকার হবার পাশাপাশি তার পরিবারকে লাঞ্ছিত হয়েছেন ও বর্তমানে হচ্ছে একাধিকবার।

এমনকি তার চাচা চাচি নানাভাবে লাঞ্ছিত হতে হচ্ছে শুধু বিএনপির রাজনীতি করে বলে ।

আরিফুল ইসলাম সাইফুল সর্বদাই মেধাবী ছাত্র নেতা ২০১৮সালে এসএসসি ও ২০২১ সালে এইচএসসি পরীক্ষা সম্পন্ন করেন সরকারী শহীদ সোহরাওয়ার্দী কলেজ থেকে। বর্তমানে তিনি নিয়মিত ছাত্রদলের সকল কর্মসূচীতে শত শত তরুন নেতা কর্মী নিয়ে বিএনপি’র নারায়ণগঞ্জ জেলা ছাত্রদল।
ও আড়াইহাজার উপজেলা ছাত্রদলের বিভিন্ন প্রোগ্রামে অংশ নিচ্ছেন।

গণতন্ত্রের মা গরীব দুঃখী মানুষের নেত্রী বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার কারাগারে থাকা অবস্থায় ২০১৮ সালে খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে মিছিলে শত শত নেতাকর্মী নিয়ে মুক্তির দাবিতে আন্দোলন করেন।
যা আড়াইহাজারে মানুষের নজরে আসেন।

এর আগে সর্বশেষ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের সময় আড়াইহাজারে বিএনপির দলীয় প্রার্থীর পক্ষে কাজ করার সময় আড়াইহাজারে হামলার শিকার হন পাশাপাশি তার পরিবারের সকল সদস্যকে লাঞ্ছিত করে স্থানীয় কালাপাহাড়িয়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীরা।

এবং আরিফুল ইসলাম সাইফুল,২০১৭ সালে স্থানীয় আওয়ামী লীগের সন্ত্রাসী বাহিনী দাঁড়া গুলিবিদ্ধ হয়ে আহত হয়।
বিভিন্ন সময়ে হামলার শিকার হয়েছেন।
ও হচ্ছেন এই তরুন ছাত্রদল নেতা।

এদিকে এত নির্যাতন ও হামলা জুলুমের শিকার হবার পরেও আড়াইহাজার উপজেলা ছাত্রদলের কমিটিতে কোন পদে নাম না আসার অভিযোগ মো: সাইফুল ইসলামের। আরও অভিযোগ করেন একটি মহল তার বিরুদ্ধে চক্রান্ত করছে

সবশেষ ঢাকা প্রেসক্লাবে ছাত্রদলের সমাবেশে পুলিশের হামলায় শিকার হবার পরও কেউ তার খোঁজ খবর নেয় নাই বলে আমাদের জানান।

এই বিষয়ে, নারায়ণগঞ্জ জেলার ছাত্রদলের সভাপতি মশিউর রহমান রনি মোবাইল ফোনে জানান, এসি রুমে বসে রাজনীতি করলে কেউ পদ পাবেন না।
আমরা সকল ত্যাগী নেতাদের কমিটিতে রাখবো

 

এই বিষয়ে, নারায়ণগঞ্জ জেলা ছাত্রদলের সাধারণ সম্পাদক , খায়রুল ইসলাম সজীব বলেন।

আড়াইহাজার উপজেলা কমিটি সেন্ট্রাল দাড়া দেওয়া হবে তাই কমিটিতে ত্যাগী নেতাগণ থাকবে বলে আশা করি। বর্তমান কমিটি হবে আগামী ৩ বছরের জন্য প্রযোজ্য হবে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *